মাত্র 417 টাকা বিনিয়োগ করেই রিটার্ন পান 1 কোটি! গ্রাহকদের জন্য বাম্পার স্কিম নিয়ে হাজির পোস্ট অফিস

Post Office Savings Scheme: ভারতীয় পোস্ট অফিসের একাধিক স্কিমের সুবিধার শেষ নেই। বিনিয়োগকারীদের প্রয়োজনীয় চাহিদা মেটাতে পোস্ট অফিস সেভিং স্কিমগুলি তুলনাহীন। এর রিটার্নের গ্যারান্টি থেকে শুরু করে আয়কর ধরা 80C-…

Written by Laxmishree Banerjee

Published on:

Post Office Savings Scheme: ভারতীয় পোস্ট অফিসের একাধিক স্কিমের সুবিধার শেষ নেই। বিনিয়োগকারীদের প্রয়োজনীয় চাহিদা মেটাতে পোস্ট অফিস সেভিং স্কিমগুলি তুলনাহীন। এর রিটার্নের গ্যারান্টি থেকে শুরু করে আয়কর ধরা 80C- এর অধীনে করছাড়ের সুবিধা, সবটাই প্রশংসা পেয়ে এসেছে আগাগোড়াই। এরকমই কয়েকটি উল্লেখযোগ্য সেভিংস স্কিম সম্পর্কে বিস্তারিত জেনে নিন এই প্রতিবেদনে।

সিনিয়র সিটিজেনস সেভিংস স্কিম (SCSS)

  • একজন ব্যক্তি নিজের নামে কিংবা স্ত্রীর সঙ্গে যৌথভাবে একাধিক অ্যাকাউন্ট রাখতে পারেন।
  • এই স্কিমে সুদের পরিমাণ বছরে 10,000 টাকার বেশি হলে কর কেটে নেওয়া হবে।
  • এই স্কিমে ন্যূনতম 1000 টাকা বিনিয়োগ করা যায়।
  • সর্বাধিক 30 লক্ষ টাকা বিনিয়োগ করা যায় (Post Office Savings Scheme)।
  • বছরে 8.2% হারে সুদ পাওয়া যায় এই স্কিমে।
  • ডিপোজিটের মেয়াদ 5 বছর।
  • তাই এই স্কিমে সর্বাধিক 15 লক্ষ টাকা বিনিয়োগ করলে এর ত্রৈমাসিক সুদ পাবেন 30,750 টাকা।

কিষাণ বিকাশ পাত্র (KVP)

  • কিষাণ বিকাশ পত্র বার্ষিক চক্রবৃদ্ধি 7.5% সুদের হার অফার করে।
  • এটি যেকোনো পোস্ট অফিস থেকে নেওয়া যাবে (Post Office Savings Scheme)।
  • বিনিয়োগকৃত পরিমাণ প্রতি 115 মাসে দ্বিগুণ হয়।
  • ন্যূনতম 1,000 টাকার বিনিয়োগ করা যায়।
  • বিনিয়োগের কোনো সর্বোচ্চ সীমা নেই।
  • এটি 2.5 বছরের বিনিয়োগের পরে একটি নগদ সুবিধাও পাওয়া যায় এই স্কিমে।

পাবলিক প্রভিডেন্ট ফান্ড (PPF)

  • পিপিএফ হল 15 বছরের জন্য একটি দীর্ঘমেয়াদী বিনিয়োগ করার ঝুঁকিহীন মাধ্যম।
  • এক আর্থিক বছরে 1,50,000 টাকার বেশি আমানত আয়কর আইনের ধারা 80C এর অধীনে করযোগ্য।
  • পিপিএফ অ্যাকাউন্ট খোলার জন্য সর্বনিম্ন বা সর্বোচ্চ বয়স নেই।
  • বিনিয়োগ একক বা কিস্তিতে করা যেতে পারে।
  • পিপিএফ অ্যাকাউন্ট শুধুমাত্র একটি একক হোল্ডিং ফর্মে খোলা যেতে পারে।
  • নিয়ম অনুযায়ী, 15 বছরের মেয়াদ পূর্ণ করার পরে ম্যাচিউরিটি পিরিয়ড আরও 5 বছর বাড়ানো যেতে পারে।
  • এখানে বিনিয়োগ করলে বর্তমানে প্রতি বছর 7.1% হারে সুদ দেওয়া হয়।
  • তাই প্রতিদিন 417 টাকা অর্থাৎ মাসে 12,500 টাকা জমালে 25 বছর পরে বিনিয়োগকারীর কোটিপতি হওয়া অবশ্যম্ভাবী।

আরও পড়ুন: এই ৬টি কারণে এখনই কেনা উচিত নয় ইলেকট্রিক গাড়ি, নয়ত হবে মারাত্মক বিপদ

ন্যাশনাল সেভিংস সার্টিফিকেট (NSC)

  • এনএসসির মেয়াদ 5 বছর।
  • ন্যূনতম 1000 টাকার বিনিয়োগ করতে হয়।
  • বিনিয়োগের কোনো সর্বোচ্চ সীমা নেই৷
  • পোস্ট অফিসের এই স্কিমে 5 বছরের জন্য টাকা বিনিয়োগ করলে চক্রবৃদ্ধি হারে 7.7% সুদ পাওয়া যায়।
  • এনএসসিতে বিনিয়োগ আয়কর আইনের ধারা 80C এর অধীনে কর ছাড়যোগ্য।
  • ব্যাংক লোন পাওয়ার জন্য NSC শংসাপত্রগুলি বন্ধক রাখা যেতে পারে।

পোস্ট অফিস টাইম ডিপোজিট (POTD)

  • জনপ্রিয়তার তালিকায় ব্যাংকের ফিক্সড ডিপোজিটের থেকেও উঁচুতে পোস্ট অফিসের টাইম ডিপোজিট স্কিম।
  • 1-5 বছর মেয়াদে এই স্কিমে ভালো পরিমানের সুদ পাওয়া যায়। যেমন 1 বছরে সুদ মেলে 6.9 শতাংশ। 2-3 বছরে 7 শতাংশের অফার থাকে। এবং 5 বছর মেয়াদের টাইম ডিপোজিটে 7.5 শতাংশ হারে সুদ দেওয়া হয়।
  • ন্যূনতম বিনিয়োগ করা যেতে পারে 1000 টাকা (Post Office Savings Scheme)।
  • বিনিয়োগের কোনো উচ্চ সীমা নেই।
  • একক হোল্ডিং বা জয়েন্ট হোল্ডিং প্যাটার্নে অ্যাকাউন্ট খোলা যেতে পারে।
  • নাবালকের নামে বিনিয়োগও অনুমোদিত।
  • 5 বছরের পোস্ট অফিস টাইম ডিপোজিটে করা বিনিয়োগের জন্য কর সুবিধা রয়েছে। ইনকাম ট্যাক্স অ্যাক্ট, 1961-এর ধারা 80C-এর অধীনে বিনিয়োগটি কর্তনের জন্যও যোগ্য।

পোস্ট অফিস মাসিক আয় স্কিম (POMIS)

  • যেকোনো আবাসিক ব্যক্তি একক বা যৌথ হোল্ডিং প্যাটার্নে MIS অ্যাকাউন্ট খুলতে পারেন। এমনকি একজন নাবালকও এই স্কিমে বিনিয়োগ করতে পারেন। যদি নাবালকের বয়স 10 বছরের বেশি হয়, তবে সে অ্যাকাউন্টটি পরিচালনা করতে পারবে।
  • বিনিয়োগের জন্য সর্বনিম্ন সীমা হল 1000 টাকা এবং সর্বোচ্চ বিনিয়োগের কোনো সীমা নেই।
  • বর্তমানে, পোস্ট অফিসে এমআইএস বার্ষিক সুদের হার 7.4% (Post Office Savings Scheme)।

এই ধরনের আরও আপডেট পেতে ফলো রাখুন আমাদের ফেসবুক পেজকে